দিন দিন ভ্রু পাতলা হয়ে যাচ্ছে, কেন হচ্ছে এমনটা? জেনেনিন বিস্তারিত ভাবে

এক জোড়া ঘন কালো ভ্রু চোখ ও মুখের সৌন্দর্য দ্বিগুণ বাড়িয়ে দেয়। একেজনের ভ্রুর আকৃতি ভিন্ন হয়ে থাকে। কারও বেশ ঘন আবার কারও পাতলা।

তবে যাদের ভ্রু পাতলা তাতের মনে আক্ষেপের শেষ নেই। এ কারণে অনেকে ভ্রু ঘন করতে ক্যাস্টর অয়েলসহ বিভিন্ন প্রসাধনীও ব্যবহার করেন।

তবে জানেন কি, বিভিন্ন রোগের কারণেও পাতলা হতে পারে আপনার ভ্রু। অনেকের ক্ষেত্রে আবার শরীরের অভ্যন্তরীণ কোনো অসুস্থতার জন্য ভ্রুর লোম ঝরতে পারে।

ত্বকে কোনো সংক্রমণ হলে কিংবা শরীরে হরমোনের ভারসাম্য বিঘ্নিত হলেও ভ্রু পাতলা হয়ে যেতে পারে। আবার কোনো জটিল রোগ বাসা বাঁধলেও ভ্রুর লোম ঝরে যেতে পারে। কোন কোন রোগের কারণে ভ্রুর ঘনত্ব পাতলা হয়ে যায় জেনে নিন-

>> শরীরে থাইরয়েড রোগ বাসা বাঁধলে এমনটা হতে পারে। হাইপোথাইরয়েডিজম ওহাইপারথাইরয়েডিজম উভয়ক্ষেত্রেই রোগীর চুল ঝরতে শুরু করে।

তবে বেশিরভাগ ক্ষেত্রে হাইপারথাইরয়েডিজমের কারণেই আপনার ভ্রুর ঘনত্ব কমতে পারে।

>> শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা যখন চুলের ফলিকলে আক্রমণ করে, তখন তাকে বলা হয় অ্যালোপেসিয়া অ্যারেটা। মাথার তালু ও মুখেই এই রোগের প্রভাব সবচেয়ে বেশি পড়ে।

এ রোগে আক্রান্ত হলে মাথার তালুতে গোল গোল চাকতির মতো টাক হয়ে যায়। এমনকি ভ্রুর লোমও ঝরতে শুরু করে।

>> অ্যাকজিমা ও পোরিওসিস প্রদাহজনিত এই দুই রোগের কারণে চুলকানি ও র্যাশ হতে পারে। লাল ছোপ সারা মুখে ছড়িয়ে পড়ে। শুধু তাই নয়, এই দুই রোগের কারণেও ভ্রুর লোম ঝরতে পারে।

Related Posts

© 2022 Totka24x7 - Theme by WPEnjoy · Powered by WordPress