সাবধান! খাবার খাওয়ার পরপরই দাঁত মাজলে যেসব ক্ষতি হতে পারে আপনার, জেনেনিন আর সতর্ক থাকুন

খাওয়ার পরপরই দাঁত মাজার অভ্যাস অনেকের। অনেকে মনে করেন, প্রতিবার খাওয়ার পরে দাঁত মাজলে তা দাঁতের জন্য ভালো। কিন্তু অতিরিক্ত কোনোকিছুই ভালো নয়। প্রয়োজনের চেয়ে বেশি দাঁত মাজলে উপকারের বদলে বরং দাঁতের ক্ষতিই হয়।

চা, কফি এবং কোমল পানীয় পান করার পরপরই দাঁত ব্রাশ করা উচিত নয়। এ জাতীয় পানীয়তে থাকা অ্যাসিডের সঙ্গে টুথপেস্টের রিঅ্যাকশনের ফলে দাঁতের এনামেল পুড়ে যায়। পাশাপাশি, অ্যাসিড দাঁতের এনামেলের ভেতরে এঁটে যায়। তাই দাঁত যদি মাজতেই হয়, এ ধরনের পানীয় পানের অন্তত মিনিট ত্রিশেক পরে মাজুন।

দিনে প্রতিবার খাওয়ার পর দাঁত পরিষ্কার করা একদমই জরুরি নয়। বরং সকাল আর রাতে মোট দু’বার দাঁত মাজলেই তা যথেষ্ট। খাওয়ার পরপরই দাঁত মাজা জরুরি কি-না, তা নির্ভর করছে আপনি কী ধরনের খাবার খাচ্ছেন তার উপর।

প্রয়োজনের চেয়ে বেশিবার দাঁত মাজার ফলে দাঁতের উপরের স্তর ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এতে ‘টুথ সেনসিটিভিটি’ বা দাঁত সিরসির করার সমস্যা দেখা দেয়। এরকম সমস্যায় অনেকেই ভুগে থাকেন।

এখন প্রশ্ন হলো, কখন তাহলে দাঁত মাজা উত্তম? বিশেষজ্ঞরা বলেন, সকালে এবং রাতে খাওয়ার পর- মোট এই দু’বার দাঁত মাজা উচিত। তবে খাবার খাওয়া ও দাঁত মাজার মধ্যে অন্তত ত্রিশ মিনিটের বিরতি রাখতেই হবে। এতে অ্যাসিডের মাত্রা কমে আসবে অনেকটাই।

বেশি জোর দিয়ে এবং অতিরিক্ত দাঁত মাজার ফলে দাঁতের এনামেল এবং মাড়ির ক্ষতি হয়। তা ছাড়া টুথব্রাশের ব্রিসেলস যদি বেশি শক্ত হয়, তাহলে তাতে দাঁত ও মাড়ি কেটে যেতে পারে।

Related Posts

© 2022 Totka24x7 - Theme by WPEnjoy · Powered by WordPress