সাবধান!এই ৫টি চোখের সমস্যা দেখা দিলে দেরি না করে এখনই সতর্ক হন…

চোখ নিয়ে আমরা এমন কয়েকটি উপসর্গের কথা আপনাকে জানাতে যাচ্ছি যা দেখা দেওয়া মাত্র ডাক্তার দেখাতে হবে।
১.আইরিশের চারপাশে সাদা গোল দাগ
অধিকাংশ ক্ষেত্রেই বয়সের কারণে এমন হয় যা নিয়ে দুশ্চিন্তার কিছু নেই। কিন্তু যদি আপনার বয়স কম হয় তাহলে আইরিশের চারপাশে গোল সাদা দাগ রক্তে উচ্চ মাত্রার কোলেস্টেরল এবং ট্রাইগ্লিসারাইডের উপস্থিতি নির্দেশ করে। যার মানে আপনার হার্ট অ্যাটাক বা স্ট্রোকের সম্ভাবনা প্রবল।
২.লাল চোখ
অপর্যাপ্ত ঘুম, দীর্ঘক্ষণ কাজ করা, বাতাসের মুখোমুখি হওয়া কিংবা রোদের কারণে চোখ লাল হতে পারে। কিন্তু যদি কোনো কারণ ছাড়াই চোখ লাল হয়ে থাকে তাহলে এটা সম্ভবত গ্লুকোমার উপসর্গ। গ্লুকোমা (ইংরেজি: Glaucoma) হলো চোখের একপ্রকার রোগ যাতে অপটিক স্নায়ু ক্ষতিগ্রস্ত হয় ও চোখ অন্ধ হয়ে যায়।
৩.শুষ্ক চোখ
শুষ্ক চোখ হলে চোখে অস্বস্তি এবং চুলকানি দেখা দেয়, এবং চুলকাতে চুলকাতে চোখের চারপাশের ত্বক কালো হয়ে যায়। ফলে চোখের চামড়া ঝুলে পড়া, বলিরেখা সৃষ্টি এবং চোখে বাতাসের প্রভাব বাড়িয়ে দিয়ে চোখ আরো শুষ্ক করে তোলে। চোখ চুলকানোর সবচেয়ে পরিচিত কারণ হলো মৌসুমি অ্যালার্জি। যদি এই শুষ্কতার কারণে আলোতে তাকাতেও সমস্যা হয় তাহলে সোগ্রেন’স সিনড্রোম নামে রোগ প্রতিরোধ ব্যবস্থার এক বিরল রোগের উপসর্গ হতে পারে।
৪.চোখের সামনে বর্ণহীন দাগ
পরিষ্কার আকাশ, সাদা দেয়াল ইত্যাদির দিকে তাকালে চোখের সামনে বর্ণহীন দাগ দেখা দেওয়ার ঘটনা আমাদের অনেকের সাথেই ঘটেছে। কিন্তু এই দাগের সংখ্যা যদি মাত্রা ছাড়িয়ে যায় তাহলে আপনাকে সতর্ক হতে হবে: এটি সম্ভবত রেটিনা বিদীর্ণ হওয়া বা বিচ্ছিন্ন হওয়ার উপসর্গ।
৫.ফোলা লাল চোখ
ক্লান্তি এবং অপর্যাপ্ত ঘুমের কারণে চোখ ফুলে লাল হয়ে যায়। কিন্তু কখনো কখনো এটি ইনফেকশনেরও লক্ষণ। অনেকে আছেন চোখ সাদা দেখানোর ড্রপ ব্যবহার করেন। দীর্ঘদিন এধরণের ড্রপ ব্যবহারেও এমন উপসর্গ দেখা দিতে পারে।