জীবনযাপন

ওজন কমাতে ঘি নাকি মাখন, কোনটি বেশি কার্যকরী? জেনেনিন

ওজন কমাতে সঠিক ডায়েট প্ল্যান অনুসরণ করা জরুরি। তাইতো স্বাস্থ্য সচেতন মানুষ সবার আগে তেল খাওয়া বর্জন করেন। বিকল্প হিসেবে তারা বেছে নেন ঘি অথবা মাখন। যদিও অনেকেরই ধারণা ঘি অথবা মাখন ওজন বৃদ্ধি করে। তবে ধারণাটি সম্পূর্ণ ভুল।
খাবারে কিছু পরিমাণে ফ্যাট রাখা অত্যন্ত জরুরি। কারণ খাবারে ফ্যাট না থাকলে শরীরের ফ্যাটও ঝরতে সময় লাগবে। এছাড়াও ভিটামিন ‘এ’, ‘ডি’ এবং ‘ই’ ঠিক মতো শরীরে কাজ করতে ফ্যাটের প্রয়োজন পড়ে।

তবে ওজন কমাতে ঘি নাকি মাখন, কোনটি বেশি কার্যকরী তা অনেকেরই প্রশ্ন। চলুন তবে এই বিষয়ে বিস্তারিত জেনে নেয়া যাক-

ঘি

১১৫ গ্রাম ক্যালোরি এবং ৯.৩ গ্রাম স্যাচুরেটেড ফ্যাট থাকে এক চামচ ঘিয়ে। যাদের দুধে হজমের সমস্যা হয় তাদের জন্য ঘি খুব ভালো। অনেকেই মনে করে ঘি খেলে ওজন বেড়ে যায়। বিষয়টা সত্যি নয়। এই জন্য বিভিন্ন ডায়েটে ঘি ব্যবহার করা হয়। ভিটামিন ডি, ‘কে’ এবং ‘এ’ রয়েছে ঘিয়ে। হজমশক্তি বাড়াতেও সাহায্য করে ঘি। তবে মেপে খাওয়া উচিত ঘি।

মাখন

এক চা চামচ মাখনে ১০০ গ্রাম ক্যালোরি এবং ১২ গ্রাম ফ্যাট থাকে। মাখনে ভিটামিন ‘এ’, ‘ই’, অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট এবং ক্যালশিয়াম রয়েছে। মাখন শরীরের পক্ষে ক্ষতিকর এই ধারণা একদম ভুল। মাখনে প্রচুর পরিমাণে ফ্যাটে থাকে। তাই এটি নিয়মিত মেপে খেলে ওবেসিটি এবং হৃদরোগের ঝুঁকি কম থাকে। এমনকি কিটো ডায়েটের নানা ধরনের কিটো রেসিপিতে মাখন লাগে। ফ্যাট এবং স্বাদ— দুই-ই যোগ হয় খাবারে।

কোনটা ওজন কমানোর জন্য ভালো

ঘি এবং মাখন কে ‘গুড ফ্যাট’ বলা হয়। তবে ওজন কমানোর সময়ে যে কোনো একটা বেছে নিতে হবে এবং খেতে হবে পরিমিত। কারণ দুইয়েরই পুষ্টিগুণ রয়েছে।

Related Articles

Back to top button