জীবনযাপন

শীতকালে আপনার উষ্ক-শুষ্ক ত্বকের মুক্তি দিবে অ্যাভোক্যাডো, জেনেনিন বিস্তারিত

শীত মানেই উষ্ক-শুষ্ক সময়। আর শীত আসলে অযত্নে মাত্রা অনেকটা বেড়ে যায়। যার ফলে ত্বকের বিভিন্ন সমস্যা দেখা দেয়। যতই ফেশিয়াল করান আর ময়শ্চারাইজার মাখুন না কেন, কিছুক্ষণ পরেই যেন আবারও ত্বকে টান ধরে। এ কারণে নাজেহাল হতে হয় অনেককেই।

এই সমস্যায় কিছুটা শান্তির ফল আসতে পারে, যদি আপনি ব্যবহার করেন ফল অ্যাভোক্যাডো। মোলায়েম মেজাজের অ্যাভোক্যাডো শীতের শুষ্ক দিনেও ত্বকে ফিরিয়ে আনতে পারে উজ্জলতা। ত্বক সতেজ রাখার ক্ষেত্রে এর কোনও বিকল্প নেই।

দেখে নেওয়া যাক আর কী কী উপকারিতা রয়েছে এই ফলে –

উজ্জ্বল ত্বকের প্রাথমিক শর্তই তো হল আর্দ্রতা। অ্যাভোক্যাডোয় অনেকটা ফ্যাট থাকে। এটি মুখে মাখলে ত্বক হয়ে ওঠে কোমল ও আর্দ্র। রোজ মুখে অ্যাভোক্যাডোর তেল লাগানো যেতে পারে। না হলে বাড়িতেই অ্যাভোক্যাডো কিনে তা দিয়ে ফেস প্যাক বানিয়ে নেওয়া যায়।

এ সময়ে মাস্ক পরে পরে ব্রণর সমস্যা অনেকের বেড়েছে। অনেক সময়েই ব্রণ হলে মুখ, গালে খুব জ্বালা করে। এই জ্বালা ভাব থেকে বাঁচাতে সক্ষম অ্যাভোক্যাডো। ফলটি চটকে নিয়ে ব্রণর উপরে লাগাতে হবে। কিছু ক্ষণ রেখে মুখ ধুয়ে ফেললে মিলবে আরাম।

শীতকালে দূষণ বাড়ে। তার প্রভাবে ত্বকে বয়সের ছাপ পড়তে থাকে। এই সমস্যার সমাধান করতে পারে পারে অ্যাভোক্যাডো। এই ফলে আছে ভিটামিন সি ও ভিটামিন ই। আর আছে বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ অ্যান্টি-অক্সিড্যান্ট। সবে মিলে ত্বকে পুষ্টি জোগায় এবং বলিরেখা নিয়ন্ত্রণ করে।

Related Articles

Back to top button