ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রনে রাখার সহজ কার্যকারী কিছু উপায়

More articles

টোটকা24×7 নিউজ ডেস্ক: বর্তমানে সারা বিশ্বের বহু সংখ্যক মানুষ ডায়াবেটিসের সমস্যায় ভুগছেন। চিকিৎসকদের মতে ডায়াবেটিস রোগীরা সুস্থ থাকতে পারে যদি এই কাজ গুলি তারা নিমিয়ত করেন।

১. রক্তের সুগার পর্যবেক্ষণ
ডায়াবেটিস রোগীদের প্রতিদিন বা নিয়মিত রক্তের সুগার পর্যবেক্ষণ করা প্রয়োজন। এটি ডায়াবেটিস থেকে হওয়া ঝুঁকি কমাতে কাজ করে। সকালে খালি পেটে এবং খাওয়ার দুই ঘণ্টা পর রক্তের সুগার পরীক্ষা করুন। সুগারের মাত্রা জানা থাকলে ডায়াবেটিসের কারণে হওয়া বিভিন্ন ঝুঁকি এড়াতে সহজ হয়।

২. হাঁটুন
ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে রাখতে হাঁটার বিকল্প নেই। নিয়মিত ব্যায়াম রক্তের সুগার নিয়ন্ত্রণের একটি স্বাস্থ্যকর উপায়। তাই প্রতিদিন অন্তত ৩০ মিনিট হাঁটুন।

৩. নারকেল তেল
যাদের ডায়াবেটিস ধরা পড়েছে, তারা খাদ্যতালিকায় এক্সট্রা ভার্জিন নারকেল তেল রাখুন। এই তেল ইনসুলিনের নিঃসরণ বাড়িয়ে রক্তের সুগার নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে। এই তেলের মধ্যে থাকা মিডিয়াম চেইন ফ্যাটি এসিড টাইপ টু ডায়াবেটিসের ঝুঁকি কমায়।

৪. লেবুজল
লেবু ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য খুব উপকারী। এমনকি আমেরিকান ডায়াবেটিস অ্যাসোসিয়েশন ডায়াবেটিস রোগীদের খাদ্যতালিকায় লেবু রাখার পরামর্শ দিয়েছে।

লেবুর মধ্যে থাকা ভিটামিন সি শক্তিশালী অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট। এটি ফ্রি রেডিকেলের ক্ষতি থেকে শরীরকে রক্ষা করতে সাহায্য করে। ফ্রি রেডিকেল কোষকে ক্ষতিগ্রস্ত করে এবং এর কারণে রক্তের সুগারের ভারসাম্য ঠিকঠাক রাখা কঠিন হয়ে পড়ে। তাই ডায়াবেটিস রোগীদের খাদ্যতালিকায় লেবুজল রাখার পরামর্শ দেন বিশেষজ্ঞরা।

৫. করলার জুস
ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে রাখতে নিয়মিত করলার জুস পান করুন। করলার মধ্যে রয়েছে তিন ধরনের উপাদান। এগুলো হলো : ক্যারানটিন, ভাইসিন ও পলিপেপটাইট-পি। এগুলো রক্তে সুগারের মাত্রা কমাতে উপকারী। তাই প্রতিদিন আধা থেকে এক কাপ করলার জুস পান করুন।

Latest