যখন তখন মাথাব্যথা? দূর করুন এভাবে

একটু এদিক-সেদিক হলেই মাথাব্যথা? কখনো কখনো কোনো কারণ ছাড়াই শুরু হয় এই সমস্যা? এমনটা হলে ভাববেন না আপনি একা। আপনার মতো আরও অনেকেই ভুক্তভোগী। ঘরে ঘরে রয়েছে এমন রোগী। অনিয়ন্ত্রিত জীবন-যাপন, মানসিক চাপসহ নানা কারণে হতে পারে মাথাব্যথা।

এই যে যখন তখন মাথাব্যথা, এর কারণে ভুগতে হয় আরও অনেক সমস্যায়। কাজে মনোযোগ দেয়া সম্ভব হয় না, নিজেকে গুটিয়ে নিতে হয় সবকিছু থেকে। বিশেষজ্ঞদের মতে, আপনার সচেতনতাই পারে মাথাব্যথা থেকে মুক্তি দিতে। সেজন্য করতে হবে কিছু কাজ। চলুন জেনে নেয়া যাক সেগুলো কী-

কোনোভাবেই শরীরকে জলশূন্য হতে দেয়া যাবে না। কিছুক্ষণ পরপরই জল পান করতে হবে।। ঘন ঘন নিয়ম করে জল পান করলে শরীরের প্রতিটি কোষ যেমন সতেজ থাকবে তেমনই সময় মতো শরীর থেকে টক্সিন বেরিয়ে যাবে। ফলে শরীর সারাক্ষণ আর্দ্র থাকবে। যা দূরে রাখবে মাথাব্যথাকে।

মদ্যপান করা এমনিতেই শরীরের জন্য ভালো নয়। এটি সরাসরি মাথাব্যথার সঙ্গে সম্পর্কিত। কারণ মদ্যপান ডেকে আনে জলশূন্যতার সমস্যা। আর জলশূন্যতা মাথাব্যথার কারণ। মদ্যপান এড়িয়ে চললে মাথাব্যথা থেকে দূরে থাকতে পারবেন।

ঘরে এসেনসিয়াল অয়েল রাখুন। যখনই মাথাব্যথার অনুভূতি হবে, সেই সুগন্ধী হাতে ঘষে নিন। একটু পরপর গন্ধ নিন। সামান্য আরাম মিলবে। খুব কড়া যেকোনো গন্ধ থেকে দূরে থাকবেন। উগ্র গন্ধ অনেক সময় মাথাব্যথার কারণ হতে পারে।

যোগব্যয়াম আমাদের জন্য উপকারী একটি উপায়। মাথাব্যথা থেকে মুক্তি পেতে নিয়ম মেনে যোগব্যয়াম করতে হবে। কারণ এর মধ্যে দিয়েই আপনি মানসিক চাপমুক্ত থাকতে পারবেন। মেজাজ ফুরফুরে থাকলে মাথাব্যথা সহজে কাছে ঘেষতে পারবে না।

আদা চায়ের উপকারিতা সম্পর্কে জানেন নিশ্চয়ই। এটি যে মাথাব্যথা সারাতে ভীষণ কার্যকরী সেকথা কি জানতেন? মাথাব্যথা তাড়াতে জাদুর মতো কাজ করে আদা চা। মাথাব্যথা হলে দিনে অন্তত দুইবার আদা চা খান। মাথাব্যথার পাশাপাশি নানা ধরনের সংক্রমণও দূরে থাকবে।

ঘুমের ক্ষেত্রে সমস্যা হলে তা-ও কিন্তু মাথাব্যথার কারণ হতে পারে। তাই চেষ্টা করুন নির্বিঘ্নে ঘুমাতে। টানা সাত ঘণ্টার মতো ঘুমাতে পারলে মাথাব্যথা দূরে থাকবে।

Related Posts

© 2022 Totka24x7 - Theme by WPEnjoy · Powered by WordPress