পাকা চুল কাঁচা করার ঘরোয়া উপায়? জেনেনিন

বয়সের সঙ্গে সঙ্গে চুল পাকা অস্বাভাবিক নয়। কিন্তু অস্বাভাবিক হয় তখনই যখন অল্প বয়সেই চুল পেকে যায়। চিকিৎসকেরা বলেন, খাদ্যাভ্যাস, বংশগত কারণ ও লিভারের নানা সমস্যা থেকে অকালে চুল পেকে যেতে পারে। এমনকি অনিয়মিত ঘুম, অতিরিক্ত মানসিক চাপ, কর্মব্যস্ততা ও পেটের নানা সমস্যা থেকেও চুল পেকে যাওয়া অস্বাভাবিক নয়।

শরীরে ভিটামিন এ, জিঙ্ক ও কপারের অভাব চুলকে প্রভাবিত করে। মেলানিন কমে যাওয়ায় চুলের রং কালো থেকে ধূসর বা সাদা হয়। অকালে চুল পেকে গেলে অনেকেই অবসাদে ভোগেন।

অনেকেই বাজার থেকে কেনা হেয়ারডাইয়ের রাসায়নিক ব্যবহার করে চুলে রং করেন। কিন্তু এসব রাসায়নিক চুল ও ত্বকের ক্ষতি করে। অনেকসময় চুল ঝরে যাওয়া, মাথায় ঘা হওয়া, এমনকি রাসায়নিক মেশানো নানা হেয়ারডাই ব্যবহার করে অ্যালার্জির সমস্যায়ও ভুগতে হয় অনেককে।

এক্ষেত্রে তাই ঘরোয়া উপায় বেছে নেয়া ভালো কারণ তাতে কোনোরকম পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া থাকে না। তাই চলুন জেনে নেই এমনই একটি কার্যকরী ঘরোয়া উপায়-

আলু ছাড়িয়ে তার খোসাগুলো একটি পাত্রে রাখুন। এতে দুই-তিন কাপ জল যোগ করুন। এবার এই জলে আলুর খোসাগুলিকে সেদ্ধ হতে দিন। আলুর খোসা সেদ্ধ হয়ে এলে জলে ছেঁকে নিন। এবার এই আলুর খোসা ছাঁকা জল ঠান্ডা হলে একটি বোতলে ভরে রাখুন। ময়েশ্চারাইজিং শ্যাম্পু ও কন্ডিশনার দিয়ে চুল ধুয়ে এই জল মাখিয়ে নিন চুলে। এরপর আর চুল ধোবেন না। বরং তোয়ালে দিয়ে চেপে রাখুন কিছুক্ষণ। তারপর চুল শুকিয়ে গেলে আঁচড়ে নিন। আলুর খোসার গন্ধে অস্বস্তি হলে এই জলে এসেনশিয়াল অয়েল মিশিয়ে রাখুন। গন্ধ দূর হবে।
এভাবে কয়েক সপ্তাহ ব্যবহার করলেই ফিরে পাবেন আপনার কাঙ্ক্ষিত চুল।

Related Posts

© 2022 Totka24x7 - Theme by WPEnjoy · Powered by WordPress